১৭ই জানুয়ারি, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ | ৩রা মাঘ, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ | ৪ঠা জমাদিউস সানি, ১৪৪২ হিজরি

কোয়ারেন্টিন মানেননি ৩ প্রবাসী: ১লক্ষ ২০হাজার টাকা জরিমানা


স্টাফ রিপোর্টার: | PhotoNewsBD

১৯ মার্চ, ২০২০, ৪:২৮ অপরাহ্ণ

মৌলভীবাজার সদর উপজেলায় কোয়ারেন্টিনে না মেনে বিয়ের আসরে এসেছেন এক গ্রিস প্রবাসী তরুণ। করোনাভাইরাসের সংক্রমণ প্রতিরোধে গ্রীস ফেরত প্রবাসীর তরুণের বিয়ে বন্ধ করে দিয়েছে প্রশাসন।
বৃহস্পতিবার (১৯ মার্চ) দুপুরে মৌলভীবাজার পৌর কমিউিনিটি সেন্টারে করোনা প্রতিরোধে সচেতনামূলক অভিযানে কনে পক্ষকে ৫০ হাজার ও কমিউনিটি সেন্টারকে ৫০ হাজার টাকা জরিমানা করেছেন নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট নেছার উদ্দীন।
তিনি বিষয়টি নিশ্চিত করে জানান, এক তরুণ গত ৮ মার্চ গ্রীস থেকে দেশে ফেরেন। এরই মধ্যে হোম কোয়ারেন্টাইন না মেনে তিনি আজ দুপুরে বিয়ে করতে বরযাত্রীসহ পৌর কমিউনিটি সেন্টারে আসেন। খবর পেয়ে ভ্রাম্যমাণ আদালত পৌর কমিউনিটি সেন্টারে গিয়ে জরিমানার পাশাপাশি বিয়ে বন্ধ করে দেয়। এবং বরকে কোয়ারেন্টাইনে পাঠানো হয়েছে।
এছাড়াও কোয়ারেন্টাই না মেনে মার্কেটে ঘুরাফেরা করা এক দুবাই ফেরত প্রবাসীকে ৫হাজার টাকা জরিমানা করে কোয়ারেন্টাইনে পাঠানো হয়েছে।
এদিকে জেলার কুলাউড়া উপজেলায় বিয়ের পিড়িতে বসা ও বিয়ের আয়োজন করা দুই প্রবাসী বরকেও ২০ হাজার টাকা জরিমানা করেছে প্রশাসন।
বৃহস্পতিবার দুপুরে কুলাউড়া করোনা প্রতিরোধে সচেতনামূলক অভিযানের অংশ হিসেবে তাদের এই অর্থদন্ড করা হয়। বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন কুলাউড়া উপজেলা নির্বাহী অফিসার এটিএম ফরহাদ চৌধুরী।
তিনি জানান, কুলাউড়ার ব্রাক্ষণবাজার ও ভাটেরা এলাকার দুইজন ওমান থেকে দেশে ফিরেছেন। সরকারি আদেশ অনুযায়ী ১৪ দিন কোয়ারেন্টাইনে থাকার কথা। কিন্তু এদের একজন আজকে বিয়ের পিড়িতে বসেছেন আর অপরজন কালকে বিয়ের আয়োজন করেছেন। তাই জনগনকে সচেতন করতে তাদের জরিমানা করা হয়েছে।
জেলায় এপর্যন্ত ১৫১ জনকে হোম কোয়ারেন্টাইনে রাখা হয়েছে। এদের সিংহভাগই বিদেশফেরত। এছাড়া কয়েকজন এদের নিকট আত্মীয়ও রয়েছেন যারা উনাদের সংস্পর্শে ছিলেন বলে জানিয়েছেন সিভিল সার্জন।
মৌলভীবাজারের সিভিল সার্জন ডা. তওহীদ আহমদ বলেন, আমরা মানুষকে সচেতন করতে কাজ করছি। আমরা সংবাদের মাধ্যমে সাধারণ মানুষকে বলতে চাই, কাজ ছাড়া বাইরে বের হবেন না, ভীড় এড়িয়ে চলুন। করোনা প্রতিরোধ সরকারী নির্দেশনা মেনে চলুন।