২০শে সেপ্টেম্বর, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ | ৫ই আশ্বিন, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ | ১৩ই সফর, ১৪৪৩ হিজরি

চার বছর পর বিসিবির বার্ষিক সাধারণ সভা


ফটোনিউজবিডি ডেস্ক: | PhotoNewsBD

২৬ আগস্ট, ২০২১, ৬:০৪ অপরাহ্ণ

চার বছর পর বাংলাদেশ ক্রিকেট বোর্ডের (বিসিবি) বার্ষিক সাধারণ সভা (এজিএম) বৃহস্পতিবার (২৬ আগস্ট) অনুষ্ঠিত হয়। কাউন্সিলরদের সম্মতিক্রমে তিন বছরের আর্থিক অনুমোদন দেওয়া হয়েছে। সেই সঙ্গে ২০২০-২১ অর্থবছরের বাজেট অনুমোদন করা হয় এজিএমে।

রাজধানীর একটি হোটেলে সকাল ১২টায় এজিএম শুরু হয়। নানা কারণে শেষ তিন বছর এই সভা আয়োজন করতে পারেনি বিসিবি। বোর্ডের দশম সভা শেষে ২৭ জুলাই এজিএমের তারিখ ঠিক করা হলেও করোনার কারণে তা পিছিয়ে যায়। বোর্ড সভাপতি নাজমুল হাসান পাপনের সভাপতিত্বে ১২০ জন কাউন্সিলরের অংশগ্রহণে অনুষ্ঠিত হয় এজিএম। তিনি শুরুতেই স্বাগত বক্তব্য রাখেন।

এরপর গত চার বছরে বিসিবির কর্মকাণ্ড, সাফল্য নিয়ে প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তার (সিইও) ১৬ পৃষ্ঠার প্রতিবেদন ও প্রধান অর্থ কর্মকর্তার ৮ পৃষ্ঠার হিসাব বিবরণী তুলে ধরা হয়। ২০১৭-১৮, ২০১৮-১৯ ও ২০১৯-২০ অর্থ বছরের অডিট রিপোর্ট এজিএমে অনুমোদিত হয়েছে। তিন বছরের আয়-ব্যয় সংক্রান্ত অডিট রিপোর্ট, কার্যক্রমসহ সবকিছুর অনুমোদন নিয়ে আলোচনা হয় এজিএমে। পাশাপাশি পরিচালনা পর্ষদ কর্তৃক অনুমোদিত অর্থবছর সমূহের আয়-ব্যয় সংক্রান্ত বিষয় নিরীক্ষণ ও অনুমোদন এবং ২০২০-২১ অর্থবছরের বাজেট অনুমোদন করা হয়।

কাউন্সিলররা নিজেদের আপত্তি ও নানা বিষয়ে বক্তব্য রেখেছেন। বিসিবির প্রধান নাজমুল বলেন, ‘বিগত চার বছরে মাঠের সাফল্য আমাদেরকে প্রশংসায় ভাসিয়েছে। প্রত্যেকে আমাদের কার্যক্রমে খুশি। এখন ছেলেদের জাতীয় দলে অনেক খেলোয়াড়। তারা ধারাবাহিক সাফল্য পাচ্ছে। আমাদের যুব দল বিশ্বকাপ জিতেছে দক্ষিণ আফ্রিকায়। মেয়েরা এশিয়া কাপ জিতেছে। ছেলেরা কিন্তু ত্রিদেশীয় সিরিজ জিতেছে। সবকিছুর ঊর্ধ্বে বাংলাদেশের যুব বিশ্বকাপ জয়।’

তবে এবারো আঞ্চলিক ক্রিকেট সংস্থা গঠন করতে না পারায় সমালোচিত হয় বোর্ড। এ ব্যাপারে বোর্ড সভাপতি আশ্বস্ত করলেন, ‘আমরা পাইলট প্রকল্প হিসেবে চট্টগ্রাম ও সিলেটে আঞ্চলিক ক্রিকেট কার্যক্রম শুরু করেছি। আমরা পুরোপুরি তা গঠন করতে পারিনি, সেটা আমাদের ব্যর্থতা। তবে আমরা বিভিন্ন জেলায় এ কার্যক্রম শুরু করব। যদিও অনেক জটিলতা রয়েছে। দুই জায়গায় করতে পেরেছি। সেই অভিজ্ঞতা সামনে কাজে লাগিয়ে সারাদেশে আমরা আঞ্চলিক ক্রিকেট সংস্থা গঠন করব।’