১৯শে সেপ্টেম্বর, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ | ৪ঠা আশ্বিন, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ | ১২ই সফর, ১৪৪৩ হিজরি

নাসিমের অবস্থা ‘সংকটাপন্ন’


ফটোনিউজবিডি ডেস্ক: | PhotoNewsBD

৬ জুন, ২০২০, ৪:১৬ অপরাহ্ণ

নিবিড় পর্যবেক্ষণ কেন্দ্রের (আইসিইউ) ভেন্টিলেশনে থাকা আওয়ামী লীগের সভাপতিমন্ডলীর সদস্য ও সাবেক স্বাস্থ্যমন্ত্রী মোহাম্মদ নাসিমের অবস্থা স্থিতিশীল রয়েছে।

শুক্রবার (৫ জুন) ব্রেন স্টোকের পর সফল অস্ত্রোপচার শেষে তিনি রাজধানীর শ্যামলীতে বাংলাদেশ স্পেশালাইজড হাসপাতালের আইসিইউতে চিকিৎসাধীন রয়েছেন।

শনিবার (৬ জুন) দুপুরে এ প্রতিবেদন লেখার পর্যন্ত তার জ্ঞান ফেরেনি বলে জানা গেছে।

মোহাম্মদ নাসিমের ছেলে তানভীর শাকিল জয় বলেন, ৭২ ঘণ্টা পার হওয়ার আগে কিছুই বলা যাচ্ছে না। এরপর চিকিৎসকরা পরবর্তী সিদ্ধান্ত নেবেন।

এদিকে নাম প্রকাশ না করা শর্তে সংশ্লিষ্ট এক চিকিৎসক বলেন, মোহাম্মদ নাসিমের অবস্থা ‘সংকটাপন্ন’। রোববার (৭ জুন) ভেন্টিলেশন খুলে দিয়ে দেখা হবে কোনো জটিলতা রয়েছে কি-না। প্রয়োজনে আরও ২৪ ঘণ্টা নিবিড় পর্যবেক্ষণে রাখা হবে। তার সু-চিকিৎসার বিষয়ে সবাই তৎপর রয়েছেন।

শুক্রবার প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা ফোনে তানভির শাকিল জয় ও চিকিৎসকের সঙ্গে কথা বলে মোহাম্মদ নাসিমের খোঁজখবর নিয়েছেন। নাসিমের রোগমুক্তির জন্য দেশবাসীর কাছে দোয়া চেয়েছে তার পরিবার।

করোনাভাইরাসের লক্ষণ নিয়ে ১ জুন (সোমবার) দুপুরে নাসিমকে বাংলাদেশ স্পেশালাইজড হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। সেখানে করোনাভাইরাস পরীক্ষার জন্য তার নমুনা সংগ্রহ করা হয়। পরে পরীক্ষার ফল পজিটিভ আসে।

শুক্রবার (৫ জুন) সকালে তার ব্রেন স্ট্রোক হয়। শ্যামলীতে বাংলাদেশ স্পেশালাইজড হাসপাতালে তার অস্ত্রোপচার হয়।

তানভীর শাকিল জয় সকালে জানিয়েছিলেন, করোনা আক্রান্তের পর থেকে বাবার অবস্থা উন্নতির দিকে যাচ্ছিল। শুক্রবার সকালে হঠাৎ করে ব্রেন স্ট্রোক হয়।

১৯৭৫ সালের ৩ নভেম্বর কারাগারে নিহত জাতীয় চার নেতার একজন শহীদ এম মনসুর আলীর ছেলে মোহাম্মদ নাসিম আওয়ামী লীগের ১৯৯৬-২০০১ সরকারে স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী ছিলেন।

২০০৮ সালের নির্বাচনে জয়ী হয়ে আওয়ামী লীগ ক্ষমতায় আসার পর মন্ত্রিসভায় না থাকলেও পরের মেয়াদে তাকে স্বাস্থ্যমন্ত্রী করেন শেখ হাসিনা।

নাসিমের সময় স্বাস্থ্য প্রতিমন্ত্রীর দায়িত্বে থাকা জাহিদ মালেক এই সরকারে পূর্ণ মন্ত্রী হিসেবে গুরুত্বপূর্ণ এ মন্ত্রণালয় সামলাচ্ছেন।