৪ঠা মার্চ, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ | ১৯শে ফাল্গুন, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ | ২০শে রজব, ১৪৪২ হিজরি

মূসক আদায় নিয়ে অসন্তোষ প্রকাশ এনবিআর চেয়ারম্যানের


ফটোনিউজবিডি ডেস্ক: | PhotoNewsBD

৫ ফেব্রুয়ারি, ২০২১, ৯:৩৯ অপরাহ্ণ

প্রচলিত পদ্ধতির মূল্য সংযোজন কর (মূসক) আদায় নিয়ে অসন্তোষ প্রকাশ করেছেন জাতীয় রাজস্ব বোর্ডের (এনবিআর) চেয়ারম্যান আবু হেনা মো. রহমাতুল মুনিম। তিনি বলেন, ‘মূসক বা ভ্যাট আদায় পুরোপুরি স্বচ্ছ নয়। এ জন্য ইলেক্ট্রনিক ফিসক্যাল ডিভাইস (ইএফডি) ব্যবস্থা চালু করা হয়েছে।’

শুক্রবার (৫ ফেব্রুয়ারি) এনবিআরের সম্মেলন কক্ষে ইএফডি মেশিন থেকে ইস্যু করার চালানের প্রথম লটারির ড্র অনুষ্ঠানে এনবিআর চেয়ারম‌্যান এসব কথা বলেন।

এনবিআর চেয়ারম্যান বলেন, ‘ইএফডি প্রকল্পের পরীক্ষামূলক কার্যক্রম সফল হওয়ায় ভ্যাট আদায়ে পদ্ধতিটি স্থায়িভাবে বাস্তবায়নের কাজ শুরু হয়েছে। এই পদ্ধতিটি অনেক সহজ ও স্বচ্ছ। ভবিষ্যতে এটি সর্বক্ষেত্রে ব্যবহার শুরু হবে। অনেকের প্রশ্ন আসতে পারে ভ্যাট আদায় সঠিকভাবে হচ্ছে কি না। এ ক্ষেত্রে বলবো, ইএফডি না থাকলেও ভ্যাট জমা হচ্ছে। তবে তাও পুরোপুরি স্বচ্ছ নয়।’

আবু হেনা বলেন, ‘ইএফডি ছাড়াও এনবিআর ভ্যাট আদায়ে আরও অনেক পদ্ধতি সংযোগ করবে। জনগণকে বলবো, আপনারার যত বেশি ভ্যাট দেবেন, ততবেশি ভ্যাট আদায় বাড়বে। এর হার (শতাংশ) কমবে ও সহজ করা হবে।’

ড্র-তে ১ জানুয়ারি ২০২১ থেকে ৩১ জানুয়ারি ২০২১ পর্যন্ত ইস্যু করা ১১ লাখ ৭৯ হাজার ১৭টি চালানের ওপর লটারি অনুষ্ঠিত হয়। বিধিমালা অনুসারে একবার লটারির জন্য বিবেচিত হয়েছেন এমন চালান পরবর্তী কোনো লটারির জন্য পুনঃবিবেচনা করা হবে না। লটারিতে এক লাখ থেকে ১০ হাজার টাকা পর্যন্ত ১০১টি পুরস্কার রয়েছে। বিজয়ীরা যেকোনো কর কমিশনারের কার্যালয় থেকে আগামী ২৮ ফেব্রুয়ারির মধ্যে আবেদন করতে হবে। এর পরের আবেদন পুরস্কারের জন্য বিবেচনা করা হবে না।

প্রথম পুরস্কার এক লাখ টাকা জয়ী চালনা নম্বর, 002221GEMMWAK039 দ্বিতীয় পুরস্কার ৫০ হাজার টাকার চালান নম্বর 001820SPXYAOH741 এবং ২৫ হাজার টাকার তৃতীয় বিজয়ী ৫টি চালনাসহ মোট ১০১টি চালানের ফল এনবিআরের ওয়েবসাইটে (www.nbr.gov.bd) প্র্রকাশ করা হয়েছে।