২৮শে জানুয়ারি, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ | ১৪ই মাঘ, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ | ১৫ই জমাদিউস সানি, ১৪৪২ হিজরি

লকডাউন তুলে নিয়েছে ইংল্যান্ড


ফটোনিউজবিডি ডেস্ক: | PhotoNewsBD

১৩ মে, ২০২০, ৪:১৫ অপরাহ্ণ

করোনাভাইরাসের বিস্তার প্রতিরোধে জারি করা লকডাউন পরীক্ষামুলকভাবে বুধবার তুলে নিয়েছে ইংল্যান্ড। লকডাউনের কারণে অর্থনীতিতে বিপর্যয়কর প্রভাব পড়ায় দেশটি এ সিদ্ধান্ত নিয়েছে।

ইউরোপে করোনায় সবচেয়ে ভয়াবহ আক্রান্ত দেশ হচ্ছে ইংল্যান্ড। সরকারি পরিসংখ্যান অনুযায়ী, দেশটিতে ৪০ হাজারের বেশি মানুষ ভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে মারা গেছে। করোনার সংক্রমণ প্রতিরোধে গত ২৩ মার্চ থেকে এখানে লকডাউন ঘোষণা করা হয়েছিল।

বার্তা সংস্থা রয়টার্স জানিয়েছে, করোনাভাইরাসের দ্বিতীয়বারের প্রাদুর্ভাবের আশঙ্কায় সরকার ধারাবাহিকভাবে নিষেধাজ্ঞা শিথিল করছে। উৎপাদনসহ বেশ কিছু খাতে কর্মরতদের সম্ভব হলে কাজে ফিরে যাওয়ার আহ্বান জানানো হয়েছে।

বুধবার প্রকাশিত মোট দেশজ উৎপাদনের (জিডিপি) তালিকায় দেখা গেছে, ফেব্রুয়ারির তুলনায় মার্চে অর্থনৈতিক প্রবৃদ্ধি হ্রাস পেয়েছে ৫ দশমিক ৮ শতাংশ। পুরো মাস লকডাউনে থাকায় এপ্রিলের চিত্র আরও ভয়াবহ।

আধা স্বায়ত্ত্বশাসিত অঞ্চল স্কটল্যান্ড, ওয়ালস ও নর্দান আয়ারল্যান্ড অবশ্য এখনও নাগরিকদের বাড়িতে থাকার বার্তা দিয়ে যাচ্ছে। তবে সবচেয়ে জনবহুল ইংল্যান্ডে জনগণকে কাজে ফেরানোর উদ্যোগ নেওয়া হচ্ছে। স্থানীয়দের সম্ভব হলে গণপরিবহন এড়িয়ে যাওয়ার পরামর্শ দেওয়া হয়েছে। স্কুলগুলো অবশ্য এখনও বন্ধ রাখা হয়েছে।

সরকারের জারি করা নতুন নির্দেশনায় পার্কে প্রাতঃ বা সান্ধ্য ভ্রমণ, পার্কে বন্ধুর সঙ্গে দেখা করা এবং বাড়ি  বদলানোর অনুমতি দেওয়া হয়েছে। দুই মিটার সামাজিক দূরত্ব বজায় রাখার যে নির্দেশনা দেওয়া হয়েছিল, সেটি লঙ্ঘন করলে পুলিশকে আইন প্রয়োগের ক্ষমতা দেওয়া হয়নি। একই সঙ্গে মাস্ক ব্যবহারের বাধ্যকতাও প্রত্যাহার করে নেওয়া হয়েছে।